হাবিপ্রবিতে ভর্তি পরীক্ষার ফল প্রকাশ, ভর্তি শুরু ৩ জানুয়ারি

image-502496-1640634939.jpg

ডেস্ক রিপোর্ট : জিএসটি গুচ্ছভুক্ত দিনাজপুরের হাজী মোহাম্মদ দানেশ বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি বিশ্ববিদ্যালয়ের (হাবিপ্রবি) ২০২১ শিক্ষাবর্ষের প্রথম বর্ষের শিক্ষার্থীদের ৮টি অনুষদের ২২টি ডিগ্রিতে মেধা তালিকায় থাকা শিক্ষার্থীদের তালিকা প্রকাশ করা হয়েছে। সেই সঙ্গে মোট আসনের ৩ গুণ শিক্ষার্থীর অপেক্ষমাণ তালিকাও প্রকাশ করা হয়েছে। আগামী ৩ জানুয়ারি থেকে শুরু হচ্ছে এই ভর্তি কার্যক্রম।রোববার বিশ্ববিদ্যালয়ের ভাইস-চ্যান্সেলর প্রফেসর ড. এম. কামরুজ্জামান প্রশাসনিক ভবনের কনফারেন্স রুমে এ ফল প্রকাশ করেন।

হাজী মোহাম্মদ দানেশ বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি বিশ্ববিদ্যালয় ২০২১ শিক্ষাবর্ষে শিক্ষার্থী ভর্তির লক্ষ্যে গত ৩ ডিসেম্বর বিজ্ঞপ্তি প্রকাশ করে। জিএসটি গুচ্ছ ভর্তি পরীক্ষায় অংশগ্রহণ করে সর্বনিম্ন ৩৫ (সাধারণ) এবং ৩০ (কোটা) নম্বরপ্রাপ্ত আবেদনকারীরা গত ১৫ ডিসেম্বর পর্যন্ত আবেদন সম্পন্ন করে। ১ হাজার ৬৯১ টি আসনের বিপরীতে সর্বমোট ২৭ হাজার ৪৬৬ জন শিক্ষার্থী আবেদন করে।

এ ইউনিটে (বিজ্ঞান) ১২ হাজার ৪৪৪ জন শিক্ষার্থী, বি ইউনিটে (মানিবক) ৮ হাজার ৯৬১ জন শিক্ষার্থী এবং সি ইউনিটে (বাণিজ্য) ৬ হাজার ৬১ জন শিক্ষার্থী আবেদন করেন। আবেদনকারীদের মধ্যে থেকে গুচ্ছ ভর্তি পরীক্ষায় ১০০ এর মধ্যে প্রাপ্ত নম্বর এবং এসএসসির ও এইচএসসি পরীক্ষার প্রাপ্ত জিপিএ (জিপিএ ৫=১০ নম্বর) বিবেচনা করে সর্বমোট ১২০ নম্বর এর ওপর স্কোর নির্ধারণ করে ও প্রার্থীদের পছন্দক্রম বিবেচনা করে ফলাফল প্রকাশ করা হয়।

আরও পড়ুন :বোল্যান্ড আগুনে পুড়ে ছাই ইংল্যান্ড, অ্যাশেজ অস্ট্রেলিয়ার

বিশ্ববিদ্যালয় কর্তৃপক্ষ কর্তৃক গঠিত টেকনিক্যাল কমিটির সার্বিক সহযোগিতায় এই প্রথমবারের মতো বিশ্ববিদ্যালয়ের নিজস্ব আইটি সেলের কর্মকর্তারা তাদের কারিগরি জ্ঞান প্রয়োগের মাধ্যমে ফলাফল প্রস্তুত করেন। বিশ্ববিদ্যালয়ের নিজস্ব সম্পদ ব্যবহার করে ভর্তির জন্য নির্বাচিত প্রার্থীদের তালিকা প্রকাশ বিশ্ববিদ্যালয়ের অগ্রগতিতে গুরুত্বপূর্ণ ভূমিকা পালন করবে বলে সংশ্লিষ্টরা মনে করেন।

নির্দিষ্ট সময়ে নির্ভুলভাবে ফলাফল প্রকাশের জন্য ভাইস-চ্যান্সেলর প্রফেসর ড. এম. কামরুজ্জামান সন্তুষ্টি প্রকাশ করেন এবং সংশ্লিষ্ট সবাইকে ধন্যবাদ জানান। এ সময় উপস্থিত ছিলেন বিশ্ববিদ্যালয়ের সম্মানিত ট্রেজারার প্রফেসর ড. বিধান চন্দ্র হালদার, সকল অনুষদের সম্মানিত ডিন, ভর্তি কমিটির সচিব ও রেজিস্ট্রার, বিশ্ববিদ্যালয়ের প্রক্টর, পরিচালক, ছাত্র পরামর্শ ও নির্দেশনা বিভাগ এবং কারিগরি উপকমিটির সদস্যরা।

উল্লেখ্য, আগামী ৩ জানুয়ারি থেকে ভর্তির বিভিন্ন কাযক্রম শুরু হয়ে ২০ জানুয়ারি সব ভর্তি প্রক্রিয়া সম্পন্ন করা হবে এবং ২৩ জানুয়ারি নবাগত শিক্ষার্থীদের ওরিয়েন্টেশন এবং ২৪ জানুয়ারি থেকে ক্লাশ কার্যক্রম শুরু হবে।

ফেসবুকের সাথে কমেন্ট করুন

Share this post

PinIt

Leave a Reply

Your email address will not be published.

scroll to top