অতিরিক্ত বাদাম খেলে কী হয়?

badam-1-20211215104628.jpg

ডেস্ক রিপোর্ট : বাদাম খেলে যে আমাদের শরীরের নানা উপকার হয়ে থাকে, একথা প্রায় সবারই জানা। প্রতিদিন বাদাম খাওয়ার পরামর্শ দিয়ে থাকেন বিশেষজ্ঞরাও। অনেকে হালকা নাস্তা হিসেবে ভাজাপোড়া বা প্রসেসড খাবারের বদলে বাদাম খেতে বেশি পছন্দ করেন। এতে পুষ্টি পাওয়া যায়, সেইসঙ্গে ক্ষুধাও দূর হয়। বই পড়তে পড়তে বা সিনেমা দেখতে দেখতেও চলে বাদাম খাওয়া।

বাদামে আছে উপকারী ফ্যাট। এছাড়াও আছে প্রচুর ওমেগা-৬ ফ্যাটি এসিড। এসব উপাদান একাধিক অসুখ যেমন হার্টের সমস্যা, ডায়াবেটিস, ক্যান্সার ইত্যাদির বিরুদ্ধে লড়াই করতে সাহায্য করে। বাদামের চনমনে স্বাদের কারণে অনেকে প্রতিদিনের খাবারের তালিকায় বাদাম রাখতে চান।

বাদামে উপকারী ফ্যাটের পাশাপাশি মনোস্যাচুরেটেড ফ্যাটি এসিড, পলি-আনস্যাচুরেটেড ফ্যাটি এসিডও রয়েছে। এটি প্রোটিন ও ম্যাগেনিয়ামের অন্যতম উত্‍স। প্রতিদিন পরিমিত বাদাম খেলে তা শরীরের জন্য বাদাম ভালো। কিন্তু আপনি যদি অতিরিক্ত বাদাম খান তখন কী হতে পারে? জেনে নিন-

ওজন বাড়াতে পারে

বাদামে উপকারী ফ্যাট থাকে ঠিকই, তবে যদি প্রতিদিন বাদাম তবে ওজন বেড়ে যেতে পারে। এক মুঠো বাদামে থাকে ১৭০ ক্যালোরি। ডায়েটারি গাইডলাইন অনুযায়ী, প্রতিদিন আমাদের শরীরে প্রয়োজন হয় ১৬০০ থেকে ২৪০০ ক্যালোরির। সেখানে আমরা বাদাম খেয়েই যদি এতটা ক্যালোরি গ্রহণ করে থাকি, তাহলে মোট ক্যালোরি গ্রহণের পরিমাণ আরও বেড়ে যায়। ফলে বাড়তে থাকে ওজন।

আরও পড়ুন :প্রধান বিচারপতি বিদায় সংবর্ধনা আজ, বিএনপিপন্থীদের বর্জন

মিনারেলের শোষণ ক্ষতিগ্রস্ত হয়

আপনি যদি অতিরিক্ত বাদাম খেতে থাকেন তবে তা শরীরে মিনারেল শোষণ কমিয়ে দেবে। বাদামে উপস্থিত ফাইটিক এসিড এজন্য দায়ী। এই এসিড শরীরে ম্যাগনেসিয়াম, আয়রন, জিঙ্ক ও ক্যালসিয়াম প্রবেশে বাধা দেয়। যে কারণে অ্যালার্জি, খাদ্যনালিতে জ্বালাপোড়া ইত্যাদি সমস্যা দেখা দিতে পারে।

উচ্চ রক্তচাপের সমস্যা

অতিরিক্ত বাদাম খেলে তা উচ্চ রক্তচাপের কারণ হতে পারে। বাদামে সোডিয়ামের পরিমাণ কম থাকে। তাই বাদাম খাওয়ার সময় অনেকেই সামান্য লবণ মিশিয়ে খেয়ে থাকেন। এই লবণই আপনার উচ্চ রক্তচাপ বাড়িয়ে দিতে পারে। সোডিয়াম রক্তপ্রবাহ থেকে পানি এবং ফ্লুইড শোষণ করে নেয়। এর ফলে দেখা দেয় উচ্চ রক্তচাপ।

প্রদাহ সৃষ্টি হতে পারে

বাদাম অল্প-স্বল্প করে খেলে কোনো সমস্যা নেই। কিন্তু আপনি যখন বেশি বা অতিরিক্ত খাবেন, সমস্যা দেখা দেবে তখনই। আপনার হয়তো জানা আছে যে, কোনোকিছুই অতিরিক্ত ভালো নয়। বাদামও এর ব্যতিক্রম নয়। এতে থাকে ওমেগা-৬ ফ্যাটি এসিড, কিন্তু ওমেগা-৩ থাকে না। ওমেগা-৩ ও ওমেগা-৬-এর ভারসাম্য ঠিক না থাকলে শরীরে প্রদাহ সৃষ্টি হয়।

অ্যালার্জির সমস্যা

অ্যালার্জির সমস্যা একেকজনের একেক খাবারের কারণে হতে পারে। তবে কারও কারও ক্ষেত্রে অতিরিক্ত বাদাম খেলে হতে পারে অ্যালার্জি। বাদামে অ্যালার্জি থাকলে এটি খাওয়ার পর ত্বকের চুলকানি, শ্বাসকষ্ট এবং ডায়রিয়া দেখা দিতে পারে।

ফেসবুকের সাথে কমেন্ট করুন

Share this post

PinIt

Leave a Reply

Your email address will not be published.

scroll to top