যুদ্ধবিরতি লঙ্ঘন, আর্মেনিয়াকে হুমকি আজেরি প্রেসিডেন্টের

image-373788-1607855292.jpg

প্রেসিডেন্ট ইলহাম আলিয়েভ। ফাইল ছবি

ডেস্ক রিপোর্ট : নাগোরনো-কারাবাখ নিয়ে পাল্টাপাল্টি যুদ্ধবিরতি লঙ্ঘনের অভিযোগ করেছে আর্মেনিয়া ও আজারবাইজান। নভেম্বরে যুদ্ধবিরতির পর প্রথমবারের মতো শনিবার সাবেক সোভিয়েতভুক্ত দেশ দুটি এমন অভিযোগ করে।

এর পরেই আজারবাইজানের প্রেসিডেন্ট আর্মেনিয়ার সেনাবাহিনীর বিরুদ্ধে হুঙ্কার ছাড়েন। তিনি আর্মেনীয় সেনাবাহিনীকে পিষে ফেলারও হুমকি দেন।

আলিয়েভ বলেন, আর্মেনিয়ার এটি আবার শুরু করা উচিত না।  এটি খুবই সতর্ক হওয়া উচিত এবং কোনো সেনা অভিযানের পরিকল্পনা  না করা উচিত। এই মুহূর্তে, আমরা তাদের সম্পূর্ণ ধ্বংস করব। এটি এখন কারো কাছে গোপনীয় নয়।

এদিকে শনিবার সকালে নাগোরনো-কারাবাখের বাহিনী দাবি করে, আজারবাইজানি সেনার হামলায় তাদের তিনজন নিরপত্তাকর্মী আহত হয়েছেন।

অপরদিকে আর্মেনীয় সেনাবাহিনীর এক প্রতিবেদনে বলা হয়েছে, নাগোরনো-কারাবাখ বাহিনীর নিয়ন্ত্রণাধীন দুটি গ্রামে হামলা চালিয়েছে আজারবাইজান।

এমন পাল্টা পাল্টি দোষারোপের পরই রাশিয়ার প্রতিরক্ষা মন্তণালয়ের পক্ষ থেকে বিবৃতি দেয়া হয়। এতে বলা হয়, হাদরুত জেলায় ১১ ডিসেম্বর একটি যুদ্ধবিরতি লঙ্ঘনের ঘটনা ঘটেছে। তবে কোনো পক্ষকে দোষারোপ করা হয়নি।

প্রায় ত্রিশ বছর বিরোধপূর্ণ নাগোরনো-কারাবাখ আর্মেনীয় নৃ-গোষ্ঠীদের দখলে ছিল। ওই অঞ্চলটি আন্তর্জাতিকভাবে আজারবাইজানের ভূখণ্ড হিসেবে স্বীকৃত। ছয় সপ্তাহের টানা যুদ্ধের পর ১০ নভেম্বর রাশিয়ার হস্তক্ষেপে আর্মেনিয়া ও আজারবাইজানের মধ্যে যুদ্ধবিরতি চুক্তি হয়। এতে ওই অঞ্চলটির বেশিরভাগ আজারবাইজানকে ছেড়ে দিতে বাধ্য হয় আর্মেনিয়া।

সূত্র: আলজাজিরা

ফেসবুকের সাথে কমেন্ট করুন

Share this post

PinIt

Leave a Reply

Your email address will not be published.

scroll to top