কর্মদক্ষতা বৃদ্ধিতে প্রশিক্ষণের বিকল্প নেই : খুবি উপাচার্য

Khulna-University-Photo-1-1.jpg

ডেস্ক রিপোর্ট: খুলনা বিশ্ববিদ্যালয়ের উপাচার্য প্রফেসর ড. মাহমুদ হোসেন বলেছেন,  কর্মদক্ষতা বৃদ্ধিতে প্রশিক্ষণের বিকল্প নেই। প্রশিক্ষণলব্ধ জ্ঞান কর্মক্ষেত্রে প্রয়োগের ফলে প্রতিষ্ঠানের সেবা প্রদানসহ সার্বিক কর্মকাণ্ডের মানোন্নয়ন ঘটে। এ জন্য নিজেদের কর্মদক্ষতা বৃদ্ধিতে প্রশিক্ষণ/কর্মশালা অব্যাহত রাখতে হবে।

মঙ্গলবার (৩০ নভেম্বর) বিকাল ৩টায় শহিদ তাজউদ্দীন আহমদ ভবনের দ্বিতীয় তলাস্থ সম্মেলন কক্ষে খুলনা বিশ্ববিদ্যালয় বার্ষিক কর্মসম্পাদন চুক্তি (এপিএ) কমিটির মাসিক সভা তিনি এ কথা বলেন।

তিনি আরও বলেন, প্রশিক্ষণের ক্ষেত্রে আগে থেকেই পরিকল্পনা গ্রহণ করতে হবে। তাহলে পরিকল্পনামাফিক প্রশিক্ষণ প্রদান সহজ হবে। তিনি বার্ষিক ভিত্তিতে প্রয়োজনীয় প্রশিক্ষণ পরিকল্পনা ও একটি প্রশিক্ষণপঞ্জী তৈরির ওপর গুরুত্বারোপ করেন।

এছাড়া তিনি বলেন, শুধু প্রশাসনিক দক্ষতা বৃদ্ধি করলে চলবে না, একাডেমিক ক্ষেত্রে দক্ষতা বৃদ্ধিতেও প্রশিক্ষণের ব্যবস্থা রাখতে হবে। একাডেমিক ক্ষেত্রের শিক্ষা-গবেষণা বিষয়ে তথ্যও সন্নিবেশ করতে হবে।

খুলনা বিশ্ববিদ্যালয় বার্ষিক কর্মসম্পাদন চুক্তি কমিটির সভাপতি ও রেজিস্ট্রার (ভারপ্রাপ্ত) প্রফেসর খান গোলাম কুদুস সভায় সভাপতিত্ব করেন। সভা সঞ্চালনা করেন এপিএ কমিটির ফোকালপার্সন কাউন্সিল শাখার উপ-রেজিস্ট্রার এস এম আবু নাসের ফারুক। সভায় এপিএর বাজেট, ত্রৈ-মাসিক রিপোর্ট, প্রশিক্ষণ পরিকল্পনা, শুদ্ধাচার পুরস্কার প্রদানসহ বিভিন্ন বিষয় নিয়ে আলোচনা করা হয়।

ফেসবুকের সাথে কমেন্ট করুন

Share this post

PinIt

Leave a Reply

Your email address will not be published.

scroll to top