টঙ্গীতে পানির জন্য হাহাকার, ৮ দিনেও ঠিক হয়নি বৈদ্যুতিক ট্রান্সমিটার

image-491620-1637910899-1.jpg

ডেস্ক রিপোর্ট : গাজীপুরের টঙ্গীতে আট দিন ধরে পানি পাচ্ছেন না প্রায় ৩০০ পরিবার। পানির অভাবে জনদুর্ভোগ চরম পর্যায়ে পৌঁছেছে।

শুক্রবার দক্ষিণ আউচপাড়া বটতলা মগদম মুন্সি রোডে পানির পাম্পের বৈদ্যুতিক ট্রান্সমিটার বিকল হওয়ায় দেখা দিয়েছে এমন দুর্ভোগ। ডেসকো কর্তৃপক্ষের সঙ্গে বারবার যোগাযোগ করা হলেও তারা বলছেন এটি সিটি করপোরেশনের কাজ। আবার সিটি করপোরেশনে যোগাযোগ করা হলে সিটি কর্তৃপক্ষ বলছে, এটি ডেসকোর কাজ।

এতে পানির জন্য হাহাকার শুরু হয়েছে। রান্নাবান্না, গোসলসহ যাবতীয় নিত্যনৈমিত্তিক কাজকর্ম সারতে এলাকার বাসিন্দাদের দূরদূরান্ত থেকে গভীর নলকূপের পানি সংগ্রহ করতে হচ্ছে। অন্যথায় বোতলজাত পানির ওপর নির্ভর করতে হচ্ছে। এতে নিদারুণ কষ্টে দিনাতিপাত করছেন ওই এলাকার হাজারও মানুষ।

এলাকাবাসী জানান, মগদম মুন্সি রোডে সিটি করপোরেশনের পক্ষ থেকে ড্রেন নির্মাণের কাজ চলছিল। শুক্রবার সকালে ভেকু দিয়ে মাটি কাটার সময় ১১ কেভি আন্ডারগ্রাউন্ড বৈদ্যুতিক লাইনটি ক্ষতিগ্রস্ত হয় এবং ট্রান্সমিটারটি পুড়ে যায়। এতে বিদ্যুৎ সংযোগ না থাকায় গছু প্রেসিডেন্ট বাড়ির পানির পাম্প বন্ধ হয়ে যায়। দীর্ঘ আট দিন ধরে পানি না পেয়ে এলাকার প্রায় ৩০০ পরিবারের হাজারও বাসিন্দা চরম কষ্টে রয়েছেন। পানির অভাবে তারা নিত্যপ্রয়োজনীয় সাংসারিক কাজকর্ম করতে পারছেন না।

আরও পড়ুন : ফেসবুকের পোস্ট নিয়ে রক্তক্ষয়ী সংঘর্ষে জড়াল গ্রামবাসী, আহত ৪০

বাইতুল জান্নাত মসজিদের মুসল্লি শাহজাহান পাঠান বলেন, গত আট দিন ধরে এলাকায় পানি নেই। মসজিদে পানির অভাবে মুসল্লিরা অজু করতে পারছেন না।

এলাকার বাসিন্দা ও হাজি কছিমউদ্দিন পাবলিক স্কুলের শিক্ষক সিদ্দিকুর রহমান জানান, গত আট দিন ধরে পানি পাচ্ছি না। পানির অভাবে ঠিকমতো গোসল করা যাচ্ছে না। শুক্রবার পবিত্র জুম্মার দিনে কীভাবে গোসল করবেন তা নিয়ে চিন্তিত তিনি।

যোগাযোগ করা হলে গাজীপুর সিটি করপোরেশন টঙ্গী অঞ্চল ১-এর সহকারী প্রকৌশলী (বিদ্যুৎ) তানভীর আহমেদ বলেন, বৈদ্যুতিক সংযোগ মেরামতের দায়িত্ব ডেসকোর। ডেসকো কর্তৃপক্ষ তাদের বৈদ্যুতিক লাইন সচল করে দিলেই পাম্পের মাধ্যমে পানি সরবরাহ করা সম্ভব হবে।

এদিকে যোগাযোগ করা হলে টঙ্গী ডেসকো অফিস পশ্চিম জোনের নির্বাহী প্রকৌশলী রায়হান আরেফিন বলেন, এটি ডেসকোর বিদ্যুতের লাইন নয়। এটি সিটি করপোরেশনের লাইন। তাই তা মেরামতের দায়িত্ব সিটি করপোরেশনের, এখানে ডেসকোর কোনো কাজ নেই। ডেসকোর কোনো লাইনে বিদ্যুৎ সরবরাহে ব্যাঘাত ঘটলে খবর পাওয়ার সঙ্গে সঙ্গে মেরামত করে ফেলা হয়।

ফেসবুকের সাথে কমেন্ট করুন

Share this post

PinIt

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

scroll to top