‘হাফ ভাড়ার সিদ্ধান্ত শনিবার’

image-491332-1637847175-1.jpg

বাসে হাফ ভাড়ার দাবিতে মোহাম্মদপুরে শিক্ষার্থীদের সড়ক অবরোধ।

ডেস্ক রিপোর্ট: বাসে শিক্ষার্থীদের হাফ ভাড়া চালুর বিষয়ে আগামী শনিবারের মধ্যে একটি যৌক্তিক সিদ্ধান্তে আসা সম্ভব হবে বলে জানিয়েছেন সড়ক পরিবহন ও সেতুমন্ত্রী ওবায়দুল কাদের।

বৃহস্পতিবার (২৫ নভেম্বর) বাংলাদেশ সড়ক পরিবহন মালিক সমিতির দ্বিবার্ষিক সাধারণ সভা ও কাউন্সিল অধিবেশনে প্রধান অতিথির বক্তৃতায় তিনি একথা জানান।

এ সময় অসুস্থ খালেদা জিয়ার চিকিৎসা নিয়ে বিএনপির সমালোচনার জবাবে ওবায়দুল কাদের বলেন, ‘খালেদা জিয়ার বিষয়টা আইনগত। মানবিক বিষয়টাও রয়েছে। প্রধানমন্ত্রী মানবিক দিকটা বিবেচনা করছেন। বিএনপি বলছে কিছু হলেই সরকারকে দায় নিতে হবে। আমি নিজেও মৃত্যুর কাছ থেকে ফিরে এসেছি। আমাদের যাদের ধর্ম বিশ্বাস আছে, আমরা বিশ্বাস করি মানুষের হায়াত-মউত আল্লাহর হাতে।’

আরও পড়ুন : ডিএসসিসির দুই পরিচ্ছন্নতাকর্মী চাকরিচ্যুত, একজন বরখাস্ত

এদিকে, শিক্ষার্থীদের গণপরিবহনে কতটুকু ভাড়া ছাড় দিলে ক্ষতি নেই তা আগামী সাত দিনের মধ্যে আলোচনা করে প্রস্তাব দিতে মালিকপক্ষকে নির্দেশ দিয়েছে বিআরটিএ।

বৃহস্পতিবার (২৫ নভেম্বর) বিকেলে বিআরটিএ অডিটোরিয়ামে বৈঠকে এ কথা জানান সড়ক পরিবহন ও মহাসড়ক বিভাগের সচিব নজরুল ইসলাম।

তিনি বলেন, বাস মালিকরা হাফ পাসে রাজি নন। তারা বলেছেন, সরকার ভর্তুকি না দিকে ঢাকায় ছাত্রদের জন্য অর্ধেক ভাড়া রাখা সম্ভব না। বিআরটিএ’র পক্ষ থেকে মালিকদের কাছে প্রস্তাব চাও হয়েছে। তবে কোনো ধরনের সিদ্ধান্ত ছাড়াই আজকের বৈঠক শেষ হয়।

বৈঠকে বাস মালিকদের পক্ষ থেকে জানানো হয়, বেসরকারি বাসে সরকার ভর্তুকি দিচ্ছে না। যানজটে সড়কে ট্রিপ কমে গেছে। টায়ারসহ বিভিন্ন যন্ত্রাংশের দাম বেড়ে গেছে। এ অবস্থায় ঢাকাসহ বিভিন্ন মহানগরে শিক্ষার্থীদের জন্য হাফ পাস চালু করা হলে বাসমালিকদের লোকসান গুনতে হবে।

আরও পড়ুন : চিতলমারীতে আর আর ডিসির স্বাক্ষর জাল করে এক ব্যক্তি আটক

এর আগে বাসে হাফ ভাড়ার দাবির পরিপ্রেক্ষিতে সচিবদের সঙ্গে বৈঠকে বসে বাংলাদেশ সড়ক পরিবহন কর্তৃপক্ষ (বিআরটিএ)। সড়ক পরিবহন ও মহাসড়ক বিভাগের সচিব নজরুল ইসলামের সভাপতিত্বে বৈঠকে অংশ নিয়েছেন জননিরাপত্তা বিভাগের সিনিয়র সচিব, মাধ্যমিক ও উচ্চশিক্ষা বিভাগের সচিব, কারিগরি ও মাদরাসা বিভাগের সচিব, পুলিশের মহাপরিদর্শক (আইজিপি), পরিবহন মালিক সমিতির প্রতিনিধি ও শ্রমিক ফেডারেশনের প্রতিনিধিরা।

তিনি বলেন, ‘তার দায় সরকারের ওপর তুলে দেবেন এটা তো ঠিক না। আমাদের বয়স হয়েছে, বেঁচে থাকার তো একটা সময়সীমা আছে। জন্মের সঙ্গে মৃত্যু জড়িত। সরকারের ওপরে আপনি কথায় কথায় দোষ চাপাতে পারেন না।’

ফেসবুকের সাথে কমেন্ট করুন

Share this post

PinIt

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

scroll to top