ফার্স্ট টাইম মেশিন চালানো সেই কিশোরের ঝুলন্ত লাশ উদ্ধার

image-490843-1637728681.jpg

ডেস্ক রিপোর্ট : রিভলবার দিয়ে গুলি চালানোর ভিডিও ফেসবুকে শেয়ার করা ও ভিডিওর ক্যাপশনে ‘ফার্স্ট টাইম মেশিন চালাইলাম’ লেখা সেই কিশোর ফারহান আহম্মেদ রাহুল ওরফে তানভীরের ঝুলন্ত লাশ উদ্ধার করেছে পুলিশ।

মঙ্গলবার সন্ধ্যায় ফতুল্লার দাপা কবরস্থান সড়কের কুদ্দুস মিয়ার ভাড়াটিয়া বাড়ির এক কক্ষ থেকে তার লাশ উদ্ধার করা হয়।

নিহত তানভীর জামালপুর জেলার মেলান্দো থানার টঙ্গীবাড়ি এলাকার নজরুল ইসলামের ছেলে।

নিহত তানভীরের মা পারভীন জানান, দুপুর দেড়টার দিকে স্থানীয় সন্ত্রাসী মিল্লাত বাহিনীর সদস্য কামরুল, জনু, সজীব, জামাই, শাকিল, রাসেল, লিমন, মমিনসহ কয়েকজন তানভীরকে রাস্তা থেকে তুলে নিয়ে চন্দ্রাবাড়ীর ভেতরে নিয়ে মারধর করে। এর পর তানভীর বাসায় ফিরলে সন্ত্রাসীরা পুনরায় তাকে ফোন করে জানায়, রাস্তায় পেলে আবারও পিটুনি দেওয়া হবে। এ ঘটনায় তানভীর তার মাকে জানিয়ে নিজ ঘরে প্রবেশ করে। পরে জানালা দিয়ে তানভীরের নিথর দেহ ঝুলতে দেখে থানায় খবর দেওয়া হয়।

আরও পড়ুন : সোনা মিয়া হত্যায় ৩ জনের যাবজ্জীবন

নিহতের বাবা চা দোকানি নজরুল জানান, তানভীর তার সঙ্গে চায়ের দোকানে বসত। একসময় সন্ত্রাসী মিল্লাত বাহিনীর সঙ্গে তানভীর চলাফেরা করত।

ফতুল্লা মডেল থানার ওসি রকিবুজ্জামান জানান, ধারণা করা হচ্ছে— বন্ধুদের সঙ্গে ঝগড়া হয়েছে আর মার খেয়ে বাসায় গিয়ে হয়তো মাকে বলেছে থানায় চলো মামলা করব। তার মা হয়তো পরে যাব বলেন, এ জন্য জিদ করে ফ্যানের সঙ্গে দড়ি পেঁচিয়ে আত্মহত্যা করেছে ওই কিশোর। বিষয়টি আরও নিশ্চিত হতে তদন্ত চলছে। এ ঘটনায় মমিন নামে তানভীরের এক বন্ধুকে আটক করা হয়েছে।

উল্লেখ্য, চলতি বছরের মার্চ মাসের ২২ তারিখে সামাজিক যোগাযোগমাধ্যম ফেসবুকের স্টোরিতে বন্দুক দিয়ে গুলি চালানোর একটি ভিডিও শেয়ার করে তানভীর দেশব্যাপী আলোচিত হয়। ভিডিওটি মুহূর্তে ছড়িয়ে পড়ায় পুলিশের নজরে আসে ওই কিশোর। এ ঘটনায় ২৩ মার্চ ফতুল্লা রেলস্টেশন এলাকা থেকে তাকে গ্রেফতার করা হয়েছিল।

ফেসবুকের সাথে কমেন্ট করুন

Share this post

PinIt

Leave a Reply

Your email address will not be published.

scroll to top