ফিরছে না স্থগিত থাকা জাতীয় ক্রিকেট লিগ

tuhin-22-03-21-copy-01.jpg

ডেস্ক রিপোর্ট : করোনাভাইরাসের কারণে দীর্ঘদিন বন্ধ থাকার পর চলতি বছরের মার্চে শুরু হয় জাতীয় ক্রিকেট লিগ। তবে প্রাণঘাতী এই ভাইরাস স্বস্তি দেয়নি। করোনার প্রকোপে দুই রাউন্ড পরই ‘সাময়িক’ স্থগিত করা হয় এনসিএল। জানানো হয়, খুব জলদিই শুরু হবে স্থগিত হওয়া এই লিগ। তবে ৬ মাস কেটে গেলেও এনসিএল মাঠে ফেরেনি। এবার ফিরছে বটে, তবে স্থগিত হওয়া এনসিএল নয়, নতুন মৌসুম শুরু করছে বাংলাদেশ ক্রিকেট বোর্ড।

যেহেতু নতুন মৌসুম, এজন্য নতুন করে ঢেলে সাজাতে হচ্ছে সবকিছু। এখনো দিনক্ষণ চূড়ান্ত না হলেও আগামী ১৫ থেকে ১৭ অক্টোবরের মধ্যে শুরু করার ভাবনা বোর্ডের। এজন্য বিভাগীয় ক্রীড়া সংস্থার কাছে তাদের দল চেয়েছেন নির্বাচকরা। জানা গেছে এবার ২০ সদস্যের স্কোয়াড থাকবে প্রতিটি দলে। যেখানে ১৬ জন চূড়ান্ত স্কোয়াডে, বাকি ৪ জনকে স্ট্যান্ডবাই হিসেবে রাখা হবে।

ঢাকা পোস্টকে নির্বাচক আব্দুর রাজ্জাক বললেন, ‘এনসিএল নিয়ে আমাদের আলাপ আলোচনা চলছে। আগামী ১৫ থেকে ১৭ অক্টোবরের মধ্যে আমরা নতুন মৌসুম শুরু করব। আগেরটা সেখানেই শেষ। সেই মৌসুম আর নতুন করে শুরু করা সম্ভব নয়। যেহেতু এবার নতুন মৌসুম, সেহেতু আমরা সব নতুন করে শুরু করব। এর জন্য আলাদা টিম হবে।’

স্থগিত হওয়া এনসিএল শুরুর আগে করোনাভাইরাস হানা দিয়েছিল দলগুলোতে। একাধিক ক্রিকেটারসহ ম্যাচ অফিশিয়ালদের আক্রান্ত হওয়ার খবর পাওয়া যায়। লিগ চলাকালীনও আক্রান্তর খবর মেলে। এবার জৈব সুরক্ষা বলয় নিয়ে বাড়তি ভাবনা বোর্ডের। এজন্য মাত্র দুটি শহরের চার ভেন্যুতে টুর্নামেন্ট আয়োজনের ভাবনা বোর্ডের।

রাজ্জাক বলছিলেন, ‘জৈব সুরক্ষা বলয়ের কারণে এবার দুই শহরে লিগ আয়োজনের কথা ভেবেছি আমরা। কক্সবাজার আর সিলেটের ৪টি ভেন্যুতে খেলাগুলো হবে। সর্বোচ্চ সতর্কতা মেনে সুরক্ষ বলয় তৈরি হবে।’

ফেসবুকের সাথে কমেন্ট করুন

Share this post

PinIt

মন্তব্য করুন

আপনার ই-মেইল এ্যাড্রেস প্রকাশিত হবে না। * চিহ্নিত বিষয়গুলো আবশ্যক।

scroll to top