ক্যাপসিকামের হরেক পদ

image-274986-1631512646.jpg

ডেস্ক রিপোর্ট  : ক্যাপসিকাম সবজিটি দেখতে বেশ সুন্দর । সবুজ, লাল ও হলুদ রংগুলো ভীষণ আকর্ষণীয়। ক্যাপসিকাম কেটে রান্না করাও বেশ সহজ। সিদ্ধ তাড়াতাড়ি হয়। স্বাদেও অনবদ্য। ক্যাপসিকামের পুষ্টিগুণও যথেষ্ট এতে থাকে প্রচুর পরিমাণ ভিটামিন সি এবং ভিটামিন এ। এছাড়াও থাকে ভিটামিন বি 2, বি 6, ই, নিয়াসিন, ফোলেট এবং রিবোফ্লেভিন। ফ্যাট এবং কার্বোহাইড্রেটের পরিমাণ নাম মাত্র এবং বেশিরভাগটাই পানি।

পনির ক্যাপসিকাম

উপকরণ-তিনশো গ্রাম পনির,ক্যাপসিকাম নানা রঙের দেড়শো গ্রাম,সর্ষের তেল একশো গ্রাম,কর্নফ্লাওয়ার একশো গ্রাম,একটা টম্যাটো,একটা পিয়াজ মিক্সিতে পেস্ট করা, আদা বাটা একচামচ,জিরে গুঁড়ো এক চামচ ,ধনেগুঁড়ো এক চামচ,ধনেপাতা বাটা তিন চামচ,গরম মসলা গুঁড়ো এক চামচ,কাশ্মীরি লঙ্কা গুঁড়ো এক চামচ,নুন ও চিনি স্বাদ মতো।ধনেপাতা কুচি এক চামচ।

প্রণালী-প্যানে সর্ষের তেল খুব ভালো গরম করে আঁচ কমিয়ে পনিরের টুকরো বড় ও চৌকো করে কেটে নিয়ে নুন ও কর্নফ্লাওয়ার মিশিয়ে ব্যাটার বানিয়ে ভেজে তুলতে হবে।এরপর ক্যাপসিকাম এর টুকরো দ হালকা ভেজে টম্যাটো ও পিয়াজের পেস্ট ,আদা বাটা,ধনেপাতা বাটা,নুন,চিনি কাশ্মীরি লাল লঙ্কা গুঁড়ো,জিরে গুঁড়ো ,ধনেগুঁড়ো,হলুদ গুঁড়ো,দিয়ে নেড়েচেড়ে অল্প জল দিয়ে ভেজেরাখা পনিরের টুকরো গুলো দিয়ে দিতে হবে।একটু মাখা মাখা হয়ে এলে গরম মসলা গুঁড়ো ও ধনেপাতা সাজিয়ে পরিবেশন করতে হবে।

স্টাফড্ ক্যাপসিকাম

উপকরণ: তিন- চারটি ক্যাপসিকাম (নানা রঙের নিতে পারেন),গাজর গ্রেট করা,কর্ন, মটরশুঁটি, একটি বড় পেঁয়াজ, রসুন বাটা, ছানা, গ্রেট করা চিজ, অলিভ অয়েল বা সাদা তেল, লবণ, রেড চিলি সস

প্রণালী: ক্যাপসিকামগুলি খুব ভালো করে ধুয়ে প্রত্যেকটি অর্ধেক করে কেটে নিন। ভিতরের বীজের অংশ কেটে ফেলে দিন। বোঁটাটি ফেলবেন না। ক্যাপসিকামের ভিতরে সামান্য তেল মাখিয়ে নিন। পেঁয়াজ খুব ছোটো করে কুঁচিয়ে নিন।

আরও পড়ুন:
সুস্বাস্থ্যের জন্য সালাদ

একটি পাত্রে তেল গরম করে তাতে প্রথমে পেঁয়াজ দিয়ে সঁতে করুন। তাতে দিন রসুন বাটা। এবার এতে এক এক করে গ্রেট করা গাজর, সিদ্ধ করা কর্নের দানা এবং মটরশুঁটি লবণ দিয়ে খুব ভালো করে ভাজতে থাকুন। সবজিগুলি সিদ্ধ হয়ে গেলে তাতে রেড চিলি সস দিন। ঝাল খেতে ভালোবাসলে শেজুয়ান সস্-ও দিতে পারেন। ভালো করে নাড়াচাড়া করে তাতে দিন ছানাগুলি। খুব ভালো করে মিশিয়ে নিন। চাইলে অল্প চিনি দিতে পারে। স্টাফ তৈরি হয়ে গেলে চামচে করে অর্ধেক করা ক্যাপসিকামে সেগুলি ভরে ফেলুন। পুর যত বেশি হবে ততই খেতে ভালো লাগবে।

এবার প্যান গরম করে ক্যাপসিকামগুলি একে একে বসিয়ে দিন। পুরের দিকটি উপরে থাকবে আর ক্যাপসিকামের গায়ের দিকটা তেলের উপর ভাজা হবে। আঁচ কমিয়ে ঢাকা দিয়ে দিন। মিনিট পাঁচেক পর ঢাকনা খুলে ক্যাপসিকামের পুরের উপরের অংশে ছড়িয়ে দিন গ্রেট করা চিজ। ফের ঢাকনা বন্ধ করে দিন। খেয়াল রাখবেন ক্যাপসিকাম যেন পুড়ে না যায়। ক্যাপসিকাম ভালোমতো সিদ্ধ হয়ে গেলে নামিয়ে নিন। সার্ভ করুন গরম গরম।

ক্যাপসিকাম চিকেন

উপকরণ: চিকেন টুকরো করা, ক্যাপসিকাম, পেঁয়াজ, কাঁচা মরিচ, আদা-রসুন বাটা, লবণ, জিরে গুঁড়ো, টম্যাটো কেচাপ, সাদা তেল

প্রণালী: ক্যাপসিকাম এবং পেঁয়াজ লম্বালম্বি করে ঝিরিঝিরি করে কাটুন। কাঁচা মরিচ লম্বালম্বি করে চিঁরে নিন। চিকেনের টুকরো সামান্য ভিনিগারে কয়েক ঘণ্টা ম্যারিনেট করে রেখে দিন। কড়াইয়ে তেল গরম করে তাতে আদা-রসুন বাটা খুব ভালো করে ভেজে নিন। বার এর মধ্যে চিকেনের টুকরো, জিরে এবং গুঁড়ো, লবণ দিয়ে খুব ভালো করে ভাজুন।

এবার এতে দিন পেঁয়াজ, ক্যাপসিকাম এবং কাঁচা মরিচ ভাজা ভাজা করুন। শেষে টোম্যাটো কেচাপ দিয়ে ভালো করে কষিয়ে নিন। পানি না দিলেই ভালো। তবে মাংস সিদ্ধ হতে সময় লাগলে সামান্য জল দিতে পারেন। পুরো পদটি কিন্তু একেবারে মাখা মাখা হবে।

ফেসবুকের সাথে কমেন্ট করুন

Share this post

PinIt

মন্তব্য করুন

আপনার ই-মেইল এ্যাড্রেস প্রকাশিত হবে না। * চিহ্নিত বিষয়গুলো আবশ্যক।

scroll to top