লেবাননে বিস্ফোরণের ঘটনায় আটক ১৬

image-332544-1596790577.jpg

লেবাননের রাজধানী বৈরুতে ভয়াবহ বিস্ফোরণ ঘটনায় জড়িত সন্দেহে ১৬ জনকে আটক করেছে প্রশাসন। আটক সবাই বৈরুত বন্দরের কর্মী।

লেবাননের রাষ্ট্রীয় নিউজ এজেন্সি এনএনএর বরাত দিয়ে এ তথ্য জানিয়েছে কাতারভিত্তিক সংবাদমাধ্যম আলজাজিরা।

তবে গ্রেফতার নয়, তদন্তের কাজে এই ১৬ বন্দরকর্মীকে হেফাজতে নেয়া হয়েছে বলে জানিয়েছেন বৈরুতের সামরিক প্রসিকিউটর ফাদি আকিকি।

এক বিবৃতিতে তিনি বলেন, বৈরুত বন্দরের ১৮ জন স্টাফকে তদন্তের কাজে জিজ্ঞাসাবাদের জন্য ডেকে আনা হয়েছিল। এদের মধ্যে ১৬ জন এখনও নিরাপত্তা বাহিনীর হেফাজতে আছেন। তদন্তের কাজের স্বার্থেই তাদের হেফাজতে রাখা হয়েছে। আটকদের মধ্যে বন্দর ও কাস্টমসের বেশ কয়েকজন কর্মকর্তা, কর্মী এবং ব্যবস্থাপক রয়েছেন।

আকিকি আরও জানান, আটক হওয়াদের মধ্যে বন্দর ও কাস্টমসের বেশ কয়েকজন কর্মকর্তা, কর্মী এবং ব্যবস্থাপক রয়েছেন। এর আগে ওই বিস্ফোরণের ঘটনায় দায়ী সন্দেহভাজন বেশ কয়েকজন কর্মকর্তাকে গৃহবন্দি করার নির্দেশ দেয় দেশটির সরকার।

মঙ্গলবার রাজধানীর বন্দর এলাকায় জোড়া বিস্ফোরণ ঘটে। এতে এখন পর্যন্ত ১৫৭ জনের প্রাণহানির খবর জানা গেছে। আহতের সংখ্যা ৫ হাজারের বেশি।

ভয়াবহ দুর্ঘটনার বিষয়ে এখন পর্যন্ত দায়ী করা হচ্ছে কারখানায় অনিরাপদভাবে মজুদ করে রাখা দুই হাজার ৭৫০ টন অ্যামোনিয়াম নাইট্রেটকে।

যদিও এ বিষয় শতভাগ নিশ্চিত রিপোর্ট আসেনি এখনও।

লেবাননের পররাষ্ট্রমন্ত্রী চার্বেল ওয়েহবে ইউরোপ ১ রেডিও চ্যানেলকে দেয়া এক সাক্ষাৎকারে জানিয়েছেন, মঙ্গলবারের ওই ভয়াবহ বিস্ফোরণে দোষীদের খুঁজে বের করতে বৃহস্পতিবার সকালে একটি তদন্ত কমিটি গঠন করা হয়েছে। কমিটিকে সর্বোচ্চ চার দিনের সময় বেঁধে দেয়া হয়েছে। এত বড় ধ্বংসযজ্ঞের পেছনে কারা দায়ী, সে বিষয়ে তদন্ত করা হবে। বিষয়টিকে সবচেয়ে বেশি গুরুত্ব দিয়ে দেখা হচ্ছে।

মঙ্গলবারের সেই বিস্ফোরণের তাণ্ডবে বৈরুত শহরের প্রায় অর্ধেকটাই ধূলিসাৎ হয়ে গেছে। বিস্ফোরণের প্রভাব এতটাই তীব্র ছিল যে দেড়শ কিলোমিটার দূরের দেশ সাইপ্রাসও কেঁপে উঠেছিল। বিস্ফোরণের ধাক্কায় ৪ দশমিক ৫ মাত্রার ভূমিকম্পের মতো কম্পন সৃষ্টি হয়েছিল বৈরুতে।

বিস্ফোরণের তীব্রতায় ঘটনাস্থল থেকে ১০ কিলোমিটার দূরের সেন্ট্রাল বৈরুতের বাড়িঘর, গাড়ির কাচ ভেঙেছে। এ ঘটনাকে ‘প্রাকৃতিক বিপর্যয়’ আখ্যা দিয়েছেন দেশটির সাংবাদিক হাবিব বাত্তাহ। ঘটনার পর দিনই দেশব্যাপী জাতীয় শোক দিবস পালন করে লেবাননের সরকার।

ফেসবুকের সাথে কমেন্ট করুন

Share this post

PinIt

মন্তব্য করুন

আপনার ই-মেইল এ্যাড্রেস প্রকাশিত হবে না। * চিহ্নিত বিষয়গুলো আবশ্যক।

error: নিরাপত্তা সতর্কতা!!!