ইরানের সঙ্গে আবারও আলোচনায় বসছে যুক্তরাষ্ট্র

image-580387-1659599296.jpg

ডেস্ক রিপোর্ট : ইরানের সঙ্গে ভিয়েনায় আবারও আলোচনায় বসতে যাচ্ছে যুক্তরাষ্ট্র। ২০১৫ সালের পারমাণবিক চুক্তি পুনরুজ্জীবিত করার লক্ষ্যে এ সপ্তাহেই ভিয়েনায় মিলিত হবেন দেশ দুটির কর্মকর্তারা।

বুধবার নাম প্রকাশ না করার শর্তে উভয় দেশের কর্মকর্তারা বিষয়টি নিশ্চিত করেছেন। খবর ওয়াশিংটন পোস্টের।দুই দেশের কর্মকর্তারাই অবশ্য বলছেন, আলোচনায় এখনই ব্যাপক অগ্রগতি হবে, এমনটি তারা আশা করছেন না।

ভিয়েনায় যাওয়ার আগে টুইটারে দেওয়া পোস্টে এ নিয়ে কথা বলেছেন ইরানের প্রধান আলোচক আলী বাঘেরি কানি। তিনি বলেন, চুক্তিটি বাঁচানোর বল এখন ওয়াশিংটনের কোর্টে। যুক্তরাষ্ট্রকে তিনি পরিপক্বতা দেখানো এবং দায়িত্বশীলতার সঙ্গে কাজ করার আহ্বান জানান।

আলী বাঘেরি কানি বলেন, চুক্তি বাঁচানোর দায়িত্ব তাদের ওপরই বর্তায়, যারা এটি লঙ্ঘন করেছে এবং অশুভ উত্তরাধিকার (ট্রাম্প প্রশাসন) থেকে দূরে থাকতে ব্যর্থ হয়েছে।

আরও পড়ুন : ‘এক চীন’ নীতির প্রতি দৃঢ় সমর্থন রয়েছে ঢাকার

জাতিসংঘে নিযুক্ত ইরানের রাষ্ট্রদূত মাজিদ তাখত রাভাঞ্চি বলেছেন, তেহরান চুক্তিটি পুনরুদ্ধারের জন্য সরল বিশ্বাসে আলোচনা করছে। তবে ইরানকে চুক্তির অর্থনৈতিক সুবিধা পাওয়ার গ্যারান্টি দিতে ব্যর্থতার জন্য তিনি যুক্তরাষ্ট্রকে দোষারোপ করেন।

রাষ্ট্রদূত মাজিদ তাখত রাভাঞ্চি বলেন, যখন যুক্তরাষ্ট্র সঠিক সিদ্ধান্ত নেবে, তখন ইরানও তার পরমাণু সংক্রান্ত পদক্ষেপের সম্পূর্ণ বাস্তবায়ন পুনরায় শুরু করবে।

যুক্তরাষ্ট্রের ইরানবিষয়ক বিশেষ দূত রব ম্যালি বলেছেন, তিনি ভিয়েনায় যাচ্ছেন। তবে এই আলোচনা থেকে বড় ধরনের কোনো অগ্রগতি তিনি আশা করছেন না।

ফেসবুকের সাথে কমেন্ট করুন

Share this post

PinIt

Leave a Reply

Your email address will not be published.

scroll to top