বাঁচার আকুতি ছোট্ট ফারহানের

farhan-20220804195851.jpg

ডেস্ক রিপোর্ট : জগন্নাথ বিশ্ববিদ্যালয়ে (জবি) কর্মরত সেকশন অফিসার সুমন মিয়া রোহানের একমাত্র সন্তান সুলাইমান আহম্মেদ ফারহান (৮) অ্যাপ্লাস্টিক অ্যানিমিয়ায় আক্রান্ত হয়ে গত দুই মাস ধরে হাসপাতালে ভর্তি।

ফারহানের বোনম্যারো থেকে রক্ত উৎপাদন সম্পূর্ণ বন্ধ হয়ে গেছে। প্রতি সপ্তাহে তাকে দুই থেকে তিন ব্যাগ প্লাটিলেট দিতে হচ্ছে, যা অত্যন্ত ব্যয়বহুল।

ফারহানের বাবা সুমন মিয়া বলেন, নিজের সর্বস্ব দিয়ে গত দুই মাস ধরে ছেলের চিকিৎসা চালিয়ে যাচ্ছি। কিন্তু গত সপ্তাহে ডাক্তার বললেন, ছেলেকে বাঁচাতে হলে উন্নত চিকিৎসার জন্য ভারতে নিয়ে যেতে হবে।

চিকিৎসা সংশ্লিষ্ট খরচের খোঁজ নিয়ে সুমন মিয়া বলেন, সেখানে চিকিৎসার জন্য ৪০ থেকে ৪৫ লাখ টাকার প্রয়োজন। এত খরচ আমার একার পক্ষে কোনোভাবে চালানো সম্ভব নয়।

ছেলে ফারহানকে সুস্থ করে তুলতে সবার সহযোগিতা চেয়েছেন সুমন। তিনি বলেছেন, সবার কাছে আমার আকুতি এই থাকবে যে আপনারা আমার ছেলের চিকিৎসার জন্য সহযোগিতার হাত বাড়িয়ে দিন।

ফারহানকে সহযোগিতা করতে ০১৭১৬৩০৮৯০৯ (সুমন) এই নম্বরে যোগাযোগ করতে বলা হয়েছে।

আর্থিক সহযোগিতার বিস্তারিত তথ্য

বিকাশ- ০১৭১৬৩০৮৯০৯ (পারসোনাল)
নগদ- ০১৬৭৬৬০৮৬০২ (পারসোনাল)

ব্যাংক অ্যাকাউন্ট
সুমন মিয়া, হিসাব নম্বর- ০২০০০০২৪৭৯৬৬৮ অগ্রণী ব্যাংক লি., জগন্নাথ বিশ্ববিদ্যালয় শাখা, ঢাকা।

সুমন মিয়া (SUMON MIA), হিসেব নম্বর- ৩০৫-১৫৮-০০১৬৪৩২, ডাচ বাংলা ব্যাংক লি. ধোলাইখাল শাখা, ঢাকা।

উল্লেখ্য, সুলাইমান আহম্মেদ ফারহান পুরান ঢাকার প্রাচীনতম বিদ্যাপীঠ সেন্ট গ্রেগরী হাই স্কুল অ্যান্ড কলেজের দ্বিতীয় শ্রেণির শিক্ষার্থী।

ফেসবুকের সাথে কমেন্ট করুন

Share this post

PinIt

Leave a Reply

Your email address will not be published.

scroll to top