৬৪তম গ্র্যামি অ্যাওয়ার্ডস পেলেন যারা

download-2022-04-04T153231.046.jpg

ডেস্ক রিপোর্ট : গ্র্যামি অ্যাওয়ার্ডসের ৬৪তম আসর অনুষ্ঠিত হয়েছে। বাংলাদেশ সময় সোমবার (৪ এপ্রিল) ভোরে জমকালো আয়োজনে প্রদান করা হয়েছে এই পুরস্কার। সংগীত জগতের সবচেয়ে মর্যাদাপূর্ণ এ পুরস্কার প্রদান করা হয়েছে যুক্তরাষ্ট্রের লাস ভেগাসের এমজিএম গ্র্যান্ড গার্ডেন এরেনায়।

এ বছর সর্বোচ্চ পাঁচটি বিভাগে গ্র্যামি জিতেছেন মার্কিন সংগীতশিল্পী জন ব্যাটিস্ট। তার ‘উই আর’ অ্যালবামটি পেয়েছে ‘অ্যালবাম অব দ্য ইয়ার’ পুরস্কার। এবারের আসরে সেরা গান হয়েছে সিল্ক সনিক ব্যান্ডের ‘লিভ দ্য ডোর ওপেন’।

গ্র্যামি প্রদানের অনুষ্ঠানটি সঞ্চালনা করেছেন কমেডিয়ান ট্রেভর নোয়া। এক নজরে জেনে নেওয়া যাক কে কোন বিভাগে গ্র্যামি জিতেছেন…রেকর্ড অব দ্য ইয়ার: লিভ দ্য ডোর ওপেন (সিল্ক সনিক ব্যান্ড)

অ্যালবাম অব দ্য ইয়ার: উই আর (জন ব্যাটিস্ট)

সং অব দ্য ইয়ার: লিভ দ্য ডোর ওপেন (সিল্ক সনিক ব্যান্ড)

সেরা নতুন শিল্পী: অলিভিয়া রড্রিগো

গ্র্যামির রেড কার্পেটে ক্যামেরাবন্দি তারকারা
সেরা পপ ভোকাল অ্যালবাম: সাওয়ার (অলিভিয়া রড্রিগো)

আরও পড়ুন : আবদুস সালাম স্মারক বৃত্তি পেলেন ঢাবির ৫ শিক্ষার্থী

সেরা পপ সলো পারফরম্যান্স: ড্রাইভারস লাইসেন্স (অলিভিয়া রড্রিগো, অ্যালবাম: সাওয়ার)

সেরা পপ দ্বৈত/দলীয় পারফরম্যান্স: কিস মি মোর (ডোজা ক্যাট ও শিজা)

সেরা ট্র্যাডিশনাল পপ ভোকাল অ্যালবাম: লাভ ফর সেল (টনি বেনেট ও লেডি গাগা)

সেরা ড্যান্স/ইলেক্ট্রনিক রেকর্ডিং: অ্যালাইভ (রুফাস ডু সল ব্যান্ড)

সেরা ড্যান্স/ইলেক্ট্রনিক অ্যালবাম: সাবকনসাসলি (ডিজে ব্ল্যাক কফি)

সেরা কনটেম্পোরারি ইনস্ট্রুমেন্টাল অ্যালবাম: ট্রি ফলস (টেলর আইগস্টি)

সেরা রক পারফরম্যান্স: মেকিং অ্যা ফায়ার (ফু ফাইটার্স)

সেরা রক গান: ওয়েটিং অন অ্যা ওয়ার (ফু ফাইটার্স)

সেরা রক অ্যালবাম: মেডিসিন অ্যাট মিডনাইট (ফু ফাইটার্স)

সেরা মেটাল পারফরম্যান্স: দ্য অ্যালিয়েন (ড্রিম থিয়েটার)

জাস্টিন বিবার
সেরা অল্টারনেটিভ মিউজিক অ্যালবাম: ড্যাডি’স হোম (সেন্ট ভিনসেন্ট)

সেরা রিদম অ্যান্ড ব্লুজ পারফরম্যান্স: লিভ দ্য ডোর ওপেন (সিল্ক সনিক ব্যান্ড) ও পিক আপ ইউর ফিলিংস (জ্যাজমিন সালিভ্যান)

সেরা ট্র্যাডিশনাল রিদম অ্যান্ড ব্লুজ পারফরম্যান্স: ফাইট ফর ইউ (হার)

সেরা রিদম অ্যান্ড ব্লুজ গান: লিভ দ্য ডোর ওপেন (সিল্ক সনিক ব্যান্ড)

সেরা প্রগ্রেসিভ রিদম অ্যান্ড ব্লুজ অ্যালবাম: টেবিল ফর টু (লাকি ডে)

সেরা রিদম অ্যান্ড ব্লুজ অ্যালবাম: হাউ টেলস (জ্যাজমিন সালিভ্যান)

সেরা র‌্যাপ পারফরম্যান্স: ফ্যামিলি টাইস (বেবি কিম ফিচারিং কেন্ড্রিক ল্যামার)

সেরা মেলোডিক র‌্যাপ পারফরম্যান্স: হারিকেন (কানিয়ে ওয়েস্ট ফিচারিং দ্য উইকেন্ড ও লিল বেবি)

সেরা র‌্যাপ সং: জেল (কানিয়ে ওয়েস্ট ফিচারিং জে-জি)

সেরা র‌্যাপ অ্যালবাম: কল মি ইফ ইউ গেট লস্ট (টাইলার, দ্য ক্রিয়েটর)

সেরা কান্ট্রি সং: কোল্ড (ক্রিস স্টেপলটন)

সেরা কান্ট্রি অ্যালবাম: স্টার্টিং ওভার (ক্রিস স্টেপলটন)

সেরা কান্ট্রি সলো পারফরম্যান্স: ইউ শুড প্রোবেবলি লিভ (ক্রিস স্টেপলটন)

সেরা কান্ট্রি দ্বৈত/দলীয় পারফরম্যান্স: ইয়াঙ্গার মি (ব্রাদারস ওসবর্ন)

সেরা নিউ এজ অ্যালবাম: ডিভাইন টাইডস (স্টুয়ার্ট কোপল্যান্ড ও রিকি কেজ)

সেরা ল্যাটিন পপ অ্যালবাম: সিনচেরা (ক্লদিয়া ব্র্যান্ট)

প্রথম পাকিস্তানি শিল্পী হিসেবে গ্র্যামি জিতলেন আরুজ আফতাব
সেরা ইমপ্রোভাইজড জ্যাজ সলো: হাম্পটি ডাম্পটি সেট টু (চিক কোরেয়া)

সেরা জ্যাজ ভোকাল অ্যালবাম: সংরাইটস এপোথেক্যারি ল্যাব (এসপারেঞ্জা স্পলডিং)

সেরা জ্যাজ ইনস্ট্রুমেন্টাল অ্যালবাম: স্কাইলাইন (রন কার্টার, জ্যাক ডিজোনেট এবং গঞ্জালো রুবালকাবা)

সেরা লার্জ জ্যাজ অনসাম্বল অ্যালবাম: ফর জিমি, ওয়েস অ্যান্ড অলিভার (ক্রিশ্চিয়ান ম্যাকব্রাইড বিগ ব্যান্ড)

সেরা লাতিন জ্যাজ অ্যালবাম: মিরর মিরর (ইলিয়ান ইলিয়াস, চিক কোরেয়া এবং চুচো ভালদেস)

সেরা লাতিন পপ অ্যালবাম: মেন্ডো (অ্যালেক্স কুবা)

সেরা মিউজিকা আরবানা অ্যালবাম: এল উলতিমো ত্যুর দেল মুনদো (ব্যাড বানি)

সেরা লাতিন রক/অল্টারনেটিভ অ্যালবাম: অরিজেন (হুয়ানেস)

সেরা রিজিওনাল মেক্সিকান মিউজিক অ্যালবাম: অ্যা মিস এইটিজ (ভিসেন্তে ফের্নান্দেজ)

সেরা ট্রপিক্যাল লাতিল অ্যালবাম: সালসুইং (রুবেন ব্লেডস এবং রবার্তো দেলগাদো অ্যান্ড অর্কেস্ট্রা)

সেরা আমেরিকান রুটস পারফরম্যান্স: ক্রাই (জন ব্যাটিস্ট)

সেরা আমেরিকান রুটস গান: ক্রাই (জন ব্যাটিস্ট)

সেরা আমেরিকানা অ্যালবাম: নেটিভ সানস (লস লোবোস ব্যান্ড)

সেরা ব্লুগ্রাস অ্যালবাম: মাই ব্লুগ্রাস হার্ট (বেলা ফ্লেক)

সেরা ট্র্যাডিশনাল ব্লুজ অ্যালবাম: আই বি ট্রায়িং (সেড্রিক বার্নসাইড)

সেরা কনটেম্পোরারি ব্লুজ অ্যালবাম: সিক্স সিক্স টু (ক্রিস্টোন কিংফিশ ইনগ্রাম)

সেরা ফোক অ্যালবাম: দে আর কলিং মি হোম (রিয়ানন গিডেনস ও ফ্রান্সেসকো তুরিসি)

সেরা র‌্যাগে অ্যালবাম: বিউটি ইন দ্য সাইলেন্স (সোজা ব্যান্ড)

সেরা গ্লোবাল মিউজিক অ্যালবাম: মাদার ন্যাচার (অ্যাঞ্জেলিক কিডজো)

সেরা গ্লোবাল মিউজিক পারফরম্যান্স: মোহাব্বাত (আরুজ আফতাব)

সেরা চিলড্রেন’স অ্যালবাম: অ্যা কালারফুল ওয়ার্ল্ড (ফলু)

সেরা স্পোকেন ওয়ার্ড অ্যালবাম (কবিতা, অডিও গ্রন্থ ও গল্পকথন): ক্যারি অন: রিফ্লেকশনস ফর অ্যা নিউ জেনারেশন ফ্রম জন লুইস (ডন শিডল)

সেরা কমেডি অ্যালবাম: সিনসিয়ারলি (লুই সি.কে.)

সেরা মিউজিক্যাল থিয়েটার অ্যালবাম: দ্য আনঅফিসিয়াল ব্রিজারটন মিউজিক্যাল (এমিলি বিয়ার)

সেরা চলচ্চিত্রের গানের অ্যালবাম: দ্য ইউনাইটেড স্টেটস ভার্সেস বিলি হলিডে (আন্ড্রা ডে)

সেরা চলচ্চিত্রের আবহসংগীত: দ্য কুইন’স গ্যাম্বিট (কার্লোস রাফায়েল রিভেরা), সৌল (জন ব্যাটিস্ট, ট্রেন্ট রেজনোর ও অ্যাটিকাস রস)

সেরা চলচ্চিত্রের গানের গীতিকার-সুরকার: অল আইস অন মি (বো বার্নহ্যাম, ছবি-বো বার্নহ্যাম: ইনসাইড)

সেরা বক্সড/স্পেশাল লিমিটেড এডিশন প্যাকেজ: অল থিংস মাস্ট পাস: ফিফটিয়েথ অ্যানিভার্সারি এডিশন (ড্যারেন ইভান্স, ড্যানি হ্যারিসন, অলিভিয়া হ্যারিসন, জর্জ হ্যারিসন)

সেরা ইঞ্জিনিয়ার্ড অ্যালবাম, নন-ক্ল্যাসিকাল: লাভ ফর সেল (টনি বেনেট ও লেডি গাগা)

সেরা ইমারসিভ অডিও অ্যালবাম: অ্যালিসিয়া (অ্যালিসিয়া কিস)

সেরা ক্ল্যাসিকাল ইনস্ট্রুমেন্টাল সলো: অ্যালোন টুগেদার (জেনিফার কোহ)

সেরা ক্ল্যাসিকাল সলো ভোকাল অ্যালবাম: মিথোলজিস (সঙ্গীতা কৌর ও হিলা প্লিটম্যান)

সেরা মিউজিক ভিডিও: ফ্রিডম (জন ব্যাটিস্ট)

সেরা মিউজিক ফিল্ম: সামার অব সৌল

প্রডিউসার অব দ্য ইয়ার, নন-ক্ল্যাসিকাল: জ্যাক অ্যান্টোনফ (লানা ডেল রে, সেন্ট ভিনসেন্ট, টেলর সুইফট, ক্লেয়ারো, লর্ড, ব্লিশার্সের অ্যালবাম)

ফেসবুকের সাথে কমেন্ট করুন

Share this post

PinIt

Leave a Reply

Your email address will not be published.

scroll to top