শিক্ষার্থীকে ইভটিজিং, ফেসবুকের সাহায্যে ধরা বখাটে

oc-bg120190316140856.jpg

চট্টগ্রাম প্রতিনিধি, prabartan | প্রকাশিত: ১৫:৩৪, ১৬- ০৩-১৯

চট্টগ্রাম: শিক্ষার্থীকে ইভটিজিং করার অভিযোগে তানভীর আহমেদ ছিদ্দিক (২৫) নামে এক বখাটেকে গ্রেফতার করেছে পুলিশ।

শনিবার (১৬ মার্চ) ভোরে বাকলিয়া থানার মিয়া খান নগর বাইদ্দারটেক এলাকা থেকে তাকে গ্রেফতার করা হয়। তানভীর আহমেদ ছিদ্দিক বাকলিয়া থানার মিয়া খান নগর বাইদ্দারটেক এলাকার আব্দুল হকের ছেলে।

শনিবার দুপুরে এ ঘটনায় সংবাদ সম্মেলন করেন কোতোয়ালী থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) মোহাম্মদ মহসীন।

ওসি মোহাম্মদ মহসীন জানান, ‘ঘটনার পর মেয়েটি ফেসবুকে ভিডিও প্রচার করে। পুলিশের কাছে অভিযোগ করে বখাটেদের শাস্তির দাবি জানায়। পরে সেই ভিডিও ফেসবুকে প্রচার করে তাদের পরিচয় বের করে পু্লিশ। শনিবার ভোরে অভিযান চালিয়ে ইভটিজিং এ জড়িত তানভীর আহমেদ ছিদ্দিককে গ্রেফতার করা হয়। তার ব্যবহৃত মোটরসাইকেলটিও জব্দ করা হয়েছে।’

এর আগে গত ৬ মার্চ কদমতলী এলাকা থেকে রিকশা করে মাদারবাড়ি বাসায় ফেরার পথে ইভটিজিংয়ের শিকার হন সিটি কলেজের শিক্ষার্থী ফারহেনা নওরীন। সেই ঘটনার ভিডিও করে ফেসবুকে প্রচার করেন তিনি।

মুখ বুজে সহ্য না করে প্রতিবাদ করুন:

ইভটিজিংসহ নারীদের সঙ্গে ঘটে যাওয়া অন্যায়ের প্রতিবাদ করার আহ্বান জানিয়েছেন ফারহেনা নওরীন। তিনি বলেন, ‘আমি চাই অন্য মেয়েরাও ইভটিজিংসহ সকল অন্যায় মুখ বুজে সহ্য না করে প্রতিবাদ করুক।

বখাটে তানভীর আহমেদ ছিদ্দিককে পুলিশ গ্রেফতারের পর তাৎক্ষণিক প্রতিক্রিয়ায় তিনি নারীদের প্রতি এ আহ্বান জানান।

ওইদিনের ঘটনার বর্ণনা দিয়ে ফারহেনা নওরীন বলেন, ‘বখাটেরা প্রথমে আমার ওড়না ধরে টান দেয়। পরে রিকশার সামনে গিয়ে অশ্লীল ভাষায় কথা বলে। তখন আমি প্রতিবাদ করে তাদের থাপ্পড় দিব বলি। পরে যখন ব্যাগ থেকে মোবাইল বের করে ভিডিও করি তারা বুঝতে পেরে চলে যায়।’

ইভটিজারদের গ্রেফতার করায় পু্লিশকে ধন্যবাদ দেন ফারহেনা নওরীন।

ফেসবুকের সাথে কমেন্ট করুন

Share this post

PinIt

Leave a Reply

Your email address will not be published.

scroll to top