টেরেন্টের রাইফেলে লেখা, ‘এবা হত্যার প্রতিশোধ নিতে’

eba-150406.jpg

ডেস্ক রিপোর্ট, prabartan | প্রকাশিত: ১৯:১০, ১৫- ০৩-১৯

নিউজিল্যান্ডের ক্রাইস্টার্চে জুমার নামাজের সময় দু’টি মসজিদে হামলার ঘটনায় মারা গেছেন তিন বাংলাদেশিসহ ৪৯ জন। হামলা চালানোর আগে হামলাকারীর ব্রেন্টন টেরেন্ট (২৮) ৭৩ পৃষ্ঠার একটি ঘোষণাপত্র দেয়।

এতে সে হামলার উদ্দেশ্য সম্পর্কে বর্ণনা করেছে। সেখানে সে তুলে ধরেছে, ২০১৭ সালে স্টকহোমে ট্রাক হামলায় নিহত ১২ বছরের শিশু এবা আকারলাউন্ডের মৃত্যুর ঘটনা।

অস্ট্রেলিয়ার কিছু গণমাধ্যম ধারণা করছে, ওই ঘটনার প্রতিশোধ নিতেই টেরেন্ট এই হামলা চালিয়েছে। এই ধারণার পেছনে হামলাকারীর রাইফেল লেখা কিছু শব্দ যুক্তি হিসেবে তুলে ধরেছে নিউজ ডটকম এইউ, টাইমস নাও এর মতো মিডিয়াগুলো।

২০১৭ সালে স্কুল থেকে ফেরার পথেস্টকহোমের রাস্তায় ট্রাক হামলায় মারা যায় শ্রবণ প্রতিবন্ধী এবা। শুক্রবারের হামলায় ব্রেন্টনের ব্যবহৃত রাইফেলের গায়ে কিছু শব্দ লেখা ছিল। হামলার ভিডিওতে যে শব্দগুলো স্পষ্ট দেখা যাচ্ছে সেগুলো হলো, ‘To take revenge for Ebba Akerlund’ (এবা আকারলাউন্ডের মৃত্যুর প্রতিশোধ নিতে)।

হামলাকারী টেরেন্ট তার ম্যানিফেস্টোতেও এমন ইঙ্গিত আছে যে,  দুই বছর আগে এবার মৃত্যু তাকে এমন নৃশংস হামলার জন্য উদ্বুদ্ধ করেছে।

উল্লেখ্য, ক্রাইস্টচার্চের আল নূর মসজিদে নিহত ৪৯ জনের মধ্যেও অন্তত দুজন শিশু বলে জানা গেছে।

ফেসবুকের সাথে কমেন্ট করুন

Share this post

PinIt

Leave a Reply

Your email address will not be published.

scroll to top