করোনার পর শিগগিরই নতুন ভাইরাস আঘাত হানবে: বিল গেটস

image-250889.jpg

ডেস্ক রিপোর্ট : কভিড-১৯ মহামারীর মতো আরেকটি মহামারী শিগগরই পৃথিবীকে আঘাত হানবে বলে সতর্ক করেছেন মাইক্রোসফটের প্রতিষ্ঠাতা বিল গেটস।চলতি সপ্তাহে প্রথমবারের মতো পাকিস্তান সফর করেছেন বিল এবং মেলিন্ডা গেটস ফাউন্ডেশনের কো-চেয়ার বিল গেটস। দেশটিতে পোলিও রোগ নিরাময়ে কীভাবে কাজ করা যায়, এ সম্পর্কে তিনি প্রধানমন্ত্রী ইমরান খানসহ সরকারের শীর্ষ কর্মকর্তাদের সঙ্গে বৈঠক করেন।

দেশটির সিএনবিসি এর সঙ্গে এক সাক্ষাৎকারে গেটস বলেন,‘করোনাভাইরাসের মতো নতুন কোনো ভাইরাস শিগগিরই পৃথিবীতে আসতে পারে। যদি চিকিৎসা ও গবেষণা খাতে পর্যাপ্ত বিনিয়োগ করা হয়। তাহলে করোনার মতো ভয়াল হতে পারবে না নতুন ভাইরাস। এ কারণে গবেষণাখাতে বরাদ্দ আরও বৃদ্ধি করা উচিত।’

আরও পড়ুন : বাণিজ্যমন্ত্রীর বক্তব্য নিষ্ঠুর রসিকতা: রিজভী

করোনা ভাইরাসের প্রাদুর্ভাব কমে যাওয়ার পিছনে তিনি মানুষের ইমিউনিটি বৃদ্ধিকে দায়ী করেন। তার মতে, গত দুই বছরে মানুষের শরীরে ইমিউনিটি বৃদ্ধি পেয়েছে। যার প্রভাব ওমিক্রনে দেখা গেছে। ইমিউনিটি বৃদ্ধির কারণে ওমিক্রন বেশি মারাত্মক হতে পারেনি।

তিনি বিশ্ব স্বাস্থ্য সংস্থার সমালোচনা করে বলেন,‘চলতি বছরের মাঝামাঝি সময়ের মধে বিশ্বের ৭০ ভাগ মানুষকে করোনার টিকা দেওয়ার লক্ষ্য স্বত্তে¡ও বর্তমানে ৬১.৯ ভাগ মানুষকে অন্তত এক ডোজ টিকা দেওয়া হয়েছে।

করোনার পরে নতুন কোনো ভাইরাস আসলে যত দ্রæত সম্ভব সবাইকে টিকা দেওয়ার প্রতি জোর দেন তিনি।এক সময় বিশ্বের সবচেয়ে ধনী বিল গেটস বলেন,‘দুই বছরের পরিবর্তে পরেরবার ছয় মাসের মধ্যে সবাইকে টিকা দেওয়া নিশ্চিত করতে হবে। এক্ষেত্রে, মেসেঞ্জার আরএনএ (এমআরএনএ) প্রযুক্তি সহায়ক হতে পারে।’

সিএনবিসিকে তিনি আরো বলেন,‘ভবিষ্যতের মহামারীতে ক্ষয়ক্ষতি বেশি হবে না। যদি আমরা বাস্তবতাকে যুক্তি দিয়ে বিশ্লেষণ করি, তাহলে অতি দ্রুত তা নিয়ন্ত্রণে সক্ষম হবো।’

ফেসবুকের সাথে কমেন্ট করুন

Share this post

PinIt

Leave a Reply

Your email address will not be published.

scroll to top