প্রেমিকার মাকে প্রেমিকের কিডনি দান, মাস পেরুতেই ব্রেকআপ

man-kidney-girlfriend-mother-2201210951.jpg

ডেস্ক রিপোর্ট : প্রেমের টানে সঙ্গীর জন্য অনেক কিছুই করেন প্রেমিক-প্রেমিকারা। এমনকি চাঁদ-তারাও এনে দেওয়ার প্রতিজ্ঞা করেন কেউ কেউ। এই তালিকায় রয়েছেন উজেল মার্টিনেজও। তবে চাঁদ-তারা নয় প্রেমিকাকে ভালোবেসে তার মাকে নিজের একটা কিডনিই দিয়ে ফেলেছিলেন তিনি। কিন্তু এরপর যা ঘটেছে তা সত্যিই অভাবনীয়।পেশায় শিক্ষক উজেল মেক্সিকোর বাসিন্দা। এক তরুণীর সঙ্গে গভীর প্রেমের সম্পর্কে জড়িয়ে পড়েন তিনি।

আরও পড়ুন : মস্কোয় রুশ-ইরান পররাষ্ট্রমন্ত্রী পর্যায়ের বৈঠক অনুষ্ঠিত

বেশ ভালোই ছিল তাদের সম্পর্ক। কিন্তু হঠাৎ তার প্রেমিকার মা অসুস্থ হয়ে পড়েন। জানা যায়, তার কিডনি অকেজো হয়ে পড়েছে এবং উপায় না পেয়ে প্রেমিকার মাকে কিডনি দান করেন উজেল।কিন্তু এরপরই ঘটে আসল ঘটনা। প্রেমিকার সঙ্গে উজেলের সম্পর্ক দিন দিন বদলে যেতে থাকে। তাকে এড়িয়ে যেতে শুরু করেন প্রেমিকা। এখানেই শেষ নয়, কিডনি দেওয়ার এক মাসের মধ্যে উজেলের সঙ্গে সম্পর্ক ছিন্ন করে অন্য যুবকে বিয়েও করেন সেই তরুণী।

নিজের জীবনের এই তিক্ত অভিজ্ঞতা সামাজিক যোগাযোগমাধ্যমে ভিডিও আকারে প্রকাশ করেন উজেল। এরপর নেটিজেনদের মধ্যেও এটি নিয়ে আলোচনা শুরু হয়। অনেকেই তাকে সান্ত্বনা দিয়েছেন। কেউ কেউ সেই তরুণীকে একহাত নিয়েছেন।

ফেসবুকের সাথে কমেন্ট করুন

Share this post

PinIt

Leave a Reply

Your email address will not be published.

scroll to top