রাতের যেসব অভ্যাস হতে পারে আপনার ক্ষতির কারণ

ghum-1-20220113151456-1.jpg

 ডেস্ক রিপোর্ট : রাতের নির্বিঘ্ন ঘুম আপনাকে পরদিন সারাদিন সুন্দরভাবে কাজ করে যাওয়ার শক্তি দেবে। আর যদি এতে বিঘ্ন ঘটে তবে ভোগান্তি পোহাতে হবে আপনাকেই। তাই ঘুমের ক্ষেত্রে অবশ্যই সচেতন হতে হবে। এর মানে হলো, আপনার যদি এমন কোনো অভ্যাস থাকে যা ঘুমের সমস্যা করতে পারে তবে সেগুলো বাদ দিতে হবে। অনেকে রাত জেগে থাকতে পছন্দ করেন, এটি খুবই ক্ষতিকর একটি অভ্যাস।

ঘুমে ব্যাঘ্যাত ঘটলে তা শুধু শরীরের ভেতরেই সমস্যার সৃষ্টি করে না, বাইরেও বিভিন্ন ছাপ পড়ে। চোখের নিচে কালি, ত্বকে ও চুলে সমস্যা এগুলো পর্যাপ্ত ঘুম না হওয়ারই চিহ্ন। তাই রাতের কিছু অভ্যাস আপনাকে অবশ্যই পরিবর্তন করতে হবে। চলুন জেনে নেওয়া যাক-

বেশি রাতে কফি খাওয়া

অনেকেরই অভ্যাস থাকে গভীর রাতে কফি খাওয়ার। কফি খাওয়া উপকারী হলেও রাত করে এটি খেলে তা আপনার জন্য উপকারের বদলে ক্ষতিই বেশি করবে। তাই এই অভ্যাস বাদ দিতে হবে। ক্যাফেইন আমাদের শারীরিকভাবে চাঙ্গা রাখে। যে কারণে মস্তিষ্ক শান্ত হয় না। ফলে আপনার ঘুম আসতেও দেরি হয়।

আরও পড়ুন : সামান্থার সঙ্গে বিচ্ছেদের বিষয় মুখ খুললেন নাগা

রাত জেগে মুভি দেখা

পরদিন তো আপনাকে কাজ করতেই হবে। এদিকে আপনি রাত জেগে হৈ-হুল্লোড় করলেন কিংবা মুভি দেখলেন, ঘুমের দিকে নজরই দিলেন না। এর প্রভাব পড়বে পরদিন কাজের সময়। তাই রাতে জেগে থাকার অভ্যাস বন্ধ করুন। এই অভ্যাস আপনাকে ক্ষতিগ্রস্ত করবে। চোখের নিচে কালি তো পড়বেই, সেইসঙ্গে হজমের সমস্যা, মাথা যন্ত্রণা হবে সঙ্গী। রাতে যতটা সম্ভব গ্যাজেট থেকেও দূরে থাকতে হবে।

বেশি রাতে খাবার খাওয়া

ঘুমের ভেতরে ক্ষুধা লাগে না। এদিকে আপনি যখন রাতে জেগে থাকবেন, ক্ষুধা তো লাগবেই। মাঝ রাতের দিকে আপনার এটা-সেটা খাওয়ার ইচ্ছে হবে। পেটে ক্ষুধা নিয়ে ঘুমও আসতে চাইবে না। আবার আপনি যখন মাঝ রাতে খাবার খাবেন, সেটি আপনার ওজন বাড়াবে, এমনকী ডায়াবেটিসের আশঙ্কাও বাড়িয়ে তুলবে।

ঘুমের রুটিন না থাকা

সবকিছুরই একটি ছন্দ থাকে। ঘুমের ক্ষেত্রেও তাই। আপনি যদি প্রতি রাতে একই সময়ে ঘুমাতে যান এবং প্রতি ভোরে একই সময়ে জাগেন, তবে সেটি অনেকগুলো সমস্যা ডেকে আনবে। তার মধ্যে অন্যতম সমস্যা হলো উচ্চ রক্তচাপ। সেইসঙ্গে গ্যাস্ট্রিক, হজমে সমস্যা ইত্যাদি তো দেখা দেবেই।

দাঁত না মেজে ঘুমাতে যাওয়া

অনেকে আছেন যারা শুধু সকালেই দাঁত ব্রাশ করেন। রাতে দাঁত ব্রাশ করার কথা তারা বেমালুম ভুলে যান। এটি খুবই খারাপ একটি অভ্যাস। আমরা সারাদিন যা কিছু খাই, তার অংশ লেগে থাকে দাঁতে। সেভাবে ঘুমাতে গেলে ব্যাকটেরিয়াদের উৎসব বসে। তাই প্রতি রাতে দাঁত মেজে তবেই ঘুমাতে হবে।

ফেসবুকের সাথে কমেন্ট করুন

Share this post

PinIt

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

scroll to top